• প্রচ্ছদ
  • »
  • সারা দেশ
  • »
  • কিশোরগঞ্জে ভারতফেরত মা ও দুই ছেলেকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠাল পুলিশ

কিশোরগঞ্জে ভারতফেরত মা ও দুই ছেলেকে কোয়ারেন্টাইনে পাঠাল পুলিশ

সাতকাহন ডেস্ক
ফাইল ছবি

ভারতে চিকিৎসা শেষে তারা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন। নিজ বাড়িতে ফেরত এ পরিবারের তিন সদস্যকে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে পাঠিয়েছে পুলিশ।

রোববার রাত সোয়া ১০টার দিকে স্বাস্থ্য বিভাগ ও পুলিশের যৌথ দল ওই পরিবারের তিন সদস্যকে কিশোরগঞ্জের শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে পাঠায়।

প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখা তিনজনের মধ্যে দুইজন পুরুষ ও একজন মহিলা। তারা কিশোরগঞ্জ জেলা শহরের নগুয়া প্রথম মোড় এলাকার বাসিন্দা। সম্পর্কে তারা মা ও ছেলে। মায়ের বয়স ৫৩ বছর এবং তার এক ছেলের বয়স ২৮ ও আরেক ছেলের বয়স ১৬ বছর।

শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতাল সূত্র বিষয়টি জানা গেছে।

জানা গেছে, মা ও দুই ছেলে চিকিৎসার জন্য ভারতের ভেলোরে অবস্থান করছিলেন। আজ রোববার তারা ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলার আখাউড়া সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন। বাংলাদেশে প্রবেশের আগে তারা তিনজনের মধ্যে দুইজন শুক্রবার ও একজন শনিবার ভারতে করোনার নমুনা দেয় পরীক্ষা করার জন্য। পরে তিনজনেরই রিপোর্ট নেগেটিভ আসে। আর সেই নেগেটিভ রিপোর্ট নিয়ে তারা আজ রোববার আখাউড়া সীমান্ত দিয়ে বাংলাদেশে প্রবেশ করেন।

সীমান্ত পারাপারের পর ব্রাহ্মণবাড়িয়া জেলা পুলিশ কিশোরগঞ্জ জেলা পুলিশকে বিষয়টি জানালে। কিশোরগঞ্জ জেলা পুলিশের নিজেস্ব ব্যবস্থাপনায় কিশোরগঞ্জ  পৌঁছালে সরাসরি তাদেরকে রাত সোয়া ১০টার দিকে শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যান। পরে হাসপাতাল কর্তৃপক্ষ তাদেরকে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে পাঠায়।

শহীদ সৈয়দ নজরুল ইসলাম মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের আবাসিক মেডিকেল অফিসার ডা. মুহাম্মদ আবিদুর রহমান ভূঞা এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন তিনি জানান, চিকিৎসা শেষে ভারতফেরত ওই তিনজনকে হাসপাতালে প্রাতিষ্ঠানিক কোয়ারেন্টাইনে রাখা হয়েছে। সোমবার করোনা পরীক্ষার জন্য তাদের নমুনা নেয়া হবে বলেও জানান তিনি।